1. [email protected] : Saiful Islam Julhas : Saiful Islam Julhas
  2. [email protected] : Sk :
ধর্ষণের পর হত্যা মামলার আসামী, আবারো ধর্ষন চেষ্টায় আসামী গ্রেফতার - Barta Bangla 24
বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৯:২৪ অপরাহ্ন

ধর্ষণের পর হত্যা মামলার আসামী, আবারো ধর্ষন চেষ্টায় আসামী গ্রেফতার

সাংবাদিক :
  • সংবদটি আপলোড করা হয়েছে : শনিবার, ৯ অক্টোবর, ২০২১
  • ৩০১ বার দেখা হয়েছে

 

জুলহাস আহমেদ,বরগুনা:
সদর উপজেলার ৯ বছরের তৃতীয় শ্রেনীতে পড়ুয়া এক কন্যা শিশুকে ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগে নাঈমুর রহমান (২৯) নামের একজনকে গ্রেফতার করেছে বরগুনা থানা পুলিশ।

থানা সূত্রে জানা গেছে- বরগুনা সদর উপজেলার ৫ নং আয়লা পাতাঘাটা ইউনিয়নের ৩য় শ্রেণীর এক ছাত্রীকে পার্শ্ববর্তী ৪ নং কেওড়াবুনিয়া ইউনিয়নের জব্বার মিয়ার ছেলে নাঈমুর রহমান একটি সরকারি প্রাইমারি স্কুলের বাথরুমে নিয়ে ধর্ষনের চেষ্টা করে।

পরে স্থানীয়রা মেয়েটিকে উদ্ধার করে জরুরি কল সেন্টার ৯৯৯ এ কল করে অভিযুক্ত নাঈমুর রহমানকে পুলিশের হাতে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী।

অভিযুক্তকারী নাঈমুর রহমান গত এক মাস পূর্বে ঢাকার নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলার ৫ বছরের এক কন্যা শিশুকে ধর্ষন করে হত্যা করে। ঢাকার আড়াই হাজার থানায় নাঈমুরের নামে একটি হত্যা মামলা চলমান রয়েছে।

শনিবার (০৯ অক্টোবর) দুপুর দেড়টার দিকে বরগুনা সদর উপজেলার ৫ নং আয়লা পাতাঘাটা ইউনিয়নের তুলাতলা ইটবাড়িয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এঘটনা ঘটে।

ভিকটিমের পিতা জানান- দুপুর ১ টার দিকে গোসল করার উদ্দেশ্যে পুকুরে গেলে ওত পেতে থাকা বখাটে নাঈমুর রহমান আমার মেয়েকে পাশের একটি স্কুলের বাথরুমে নিয়ে ধর্ষন করার চেষ্টা করে। ওর চিৎকারে এলাকার লোকজন এসে আমার মেয়েকে উদ্ধার করে এবং এসময়ে আসামী পালিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়রা আসামীকে আটক করে জরুরি কল সেন্টার ৯৯৯ এ কল দিলে বরগুনা সদর থানার এস আই রেজাউল করিম বিকাল সাড়ে ৫ টার দিকে নাইমুরকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

তিনি আরও বলেন-আমার মেয়েকে পথ দেখানোর কথা বলে স্কুলের বাথরুমে ঢুকিয়ে ধর্ষনের চেষ্টা করে। আমি অভিযুক্তকারী নাঈমুর রহমানের বিরুদ্ধে একটি ধর্ষন মামলা করবো। আমি আইনের মাধ্যমে এর সঠিক বিচার চাই।

এসআই রেজাউল করিম বলেন- ৯৯৯ জরুরী কল সেন্টারের মাধ্যমে আমি জানতে পেরে ঘটনা স্থলে যাই। পরে সেখানে অভিযান চালিয়ে স্থানীয় লোকের সহযোগীতায় নাঈমুর রহমানকে গ্রেফতার করে ভিকটিমসহ থানায় নিয়ে আসি।

এব্যাপারে বরগুনা সদর থানার অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি) কে,এম, তারিকুল ইসলাম বলেন- ৯৯৯ ফোন পেয়ে আমাদের পুলিশ ঘটনাস্থলে যায় এবং অভিযান চালিয়ে অভিযুক্তকারী নাঈমুর রহমানকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসা হয়। বর্তমানে এবিষয়ে একটি ধর্ষন মামলার প্রস্তুতি চলছে।

তিনি আরও জানান- অভিযুক্তকারী এই নাঈমুর রহমানের নামে ঢাকার আড়াইহাজার থানায় একটি শিশু হত্যা মামলা রয়েছে। গত এক মাস আগে এই নাঈমুর রহমান ঢাকায় ৫ বছরের একটি কন্যা শিশুকে ধর্ষন করে হত্যা করে। সেই মামলারও সে একজন আসামী।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: সাইবার প্লানেট বিডি